Home ত্রিপুরা আশ্চর্যজনকভাবে ধর্মনগর থানা থেকে ১০ বছরের একটি ছেলে নিখোঁজ।

আশ্চর্যজনকভাবে ধর্মনগর থানা থেকে ১০ বছরের একটি ছেলে নিখোঁজ।

by admin
0 comment 107 views

ধর্মনগর প্রতিনিধি।
একের পর এক নতুন নতুন ঘটনা ঘটে চলেছে ধর্মনগর থানায়। মানুষ যখন সর্বস্ব খুইয়ে নিঃস্ব হয়ে থানার দারস তো হয় তখন পুলিশ বাবুরা নিঃস্ব হয়ে যাওয়া ব্যক্তিকে তার হারিয়ে যাওয়া জিনিস প্রাপ্তিকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেয়। কিন্তু ধর্মনগর থানায় ঘটে চলেছে এক বিপরীত ধর্মী বিচিত্র ধরনের আচরণ। ৯ ফেব্রুয়ারি বিকাল সাড়ে চারটা থেকে ধর্মনগর থানায় নিয়ে আসা ১০ বছরের বালক দেবরাজ দে এখনো নিখোঁজ। ঘটনার বিবরণে জানা যায় ধর্মনগরের পদ্মপুরের মধুবাড়ী রোডে কুকুর নিয়ে একজনের সাথে দুটি পালকের কিছু গন্ডগোল হয় এমনকি বালক দুটির অপরাধের জন্য এক ব্যক্তি তাদেরকে অল্প চড় থাপ্পড় দিয়ে পদ্মপুর ক্লাবে নিয়ে যায়। সেখান থেকে ধর্মনগর থানার পুলিশের হাতে বালক দুটিকে তুলে দেওয়া হয়। তুলে দেওয়ার পর একটি ভালোকের মা তাকে কিছু পরে গিয়ে নিয়ে আসলেও দেবরাজের বাবা রূপক দে এবং মা বেবী দে তাদের ১০ বছরের ছেলেকে থানায় খুঁজে পায়নি। পড় পড় তিনদিন ঘোরার পর থানা বাবুরা নিখোঁজ ডায়েরি করতে বলেন আবার এই নিখোঁজ ডাইরি করতে ৩০০ টাকা লাগবে একথা বলার পর বেবি দে টাকা দিতে পারবে না বলে বাড়িতে চলে যায়। বেবি দে নিখোঁজ ছেলেকে কিরে পেতে আদালতের মুখাপেক্ষী হয়। লিগ্যাল সেলের দায়িত্ববান কর্মীরা বেবি থেকে সার্বিক বর্ণনা দিয়ে নিখোঁজ ডায়েরি লিখে ধর্মনগর থানায় জমা দেওয়ার ব্যবস্থা করেন। আজ ২৫ দিন অতিক্রান্ত হয়ে গেল, এক মাস অতিক্রান্ত হওয়ার পথে এখনো থানা থেকে হারিয়ে যাওয়া দশ বছরের নাবালকের খবর দিতে ব্যর্থ ধর্মনগর থানার পুলিশ। সত্যি সেলুকাস কি বিচিত্র এই দেশ থানা থেকে হারিয়ে যায় নাবালক, এক মাস অতিক্রান্ত হওয়ার পথে ছেলের খোঁজ নিতে গেলে মাকে উল্টাপাল্টা বুঝিয়ে হুমকি দিয়ে বের করে দেওয়া হচ্ছে।

Related Post

Leave a Comment