Home ত্রিপুরা যথাযোগ্য মর্যাদা সঙ্গে স্মরণ করা হলো দেশ স্বাধীনতা সংগ্রামী সুশীল কুমার দেকে।

যথাযোগ্য মর্যাদা সঙ্গে স্মরণ করা হলো দেশ স্বাধীনতা সংগ্রামী সুশীল কুমার দেকে।

by admin
0 comment 41 views

 প্রতিনিধি, তেলিয়ামুড়া ২৯ শে জুন :- যথাযোগ্য মর্যাদার সঙ্গে তেলিয়ামুড়ায় পালিত হলো প্রয়াত স্বাধীনতা সংগ্রামী আন্দামান জেল ফেরত মাষ্টার দা সূর্যসেনের সহযোদ্ধা প্রয়াত সুশীল কুমার দে এর ২৫ তম প্রয়াণ দিবস ।এই উপলক্ষ্যে শনিবার সকাল সাড়ে দশটায় তেলিয়ামুড়ার জয়নগরস্তিত প্রয়াত এর বাসভবনে উনার প্রতিকৃতিতে পুষ্পাঞ্জলি প্রদান করে এদিন শ্রদ্ধা জানাতে উপস্তিত ছিলেন মাষ্টার দা সূর্যসেন ট্রাস্টি বোর্ডের কর্মকর্তাগণ সহ স্থানীয় পুর পরিষদের কাউন্সিলারগণ এবং বিশিষ্ট ব্যক্তিগণ।এদিন পুষ্পার্ঘ্য অর্পণের পাশাপাশি সুশীল কুমার দে এর এক স্মরণসভায় উনার আত্মজীবনী নিয়ে একে একে আলোচনা করেন উপস্তিত অথিতিগণ।উল্লেখ থাকে যে,ব্রিটিশ ভারতের স্বাধীনতা আন্দোলনের অন্যতম এই বীর সেনানী ২০০০ সনের ২৯ শে জুন জীবনের শেষলগ্নে তেলিয়ামুড়ার জয়নগরে নিজবাসভবনে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।মৃত্যুকালে উনার বয়স হয়েছিল ৯২ বছর। মাস্টারদা সূর্যসেনের সহ যোদ্ধা হিসাবে চট্টগ্রাম অস্ত্রাগার লুণ্ঠনে সক্রিয়ভাবে অংশ নেন এবং ইউরোপিয়ান ক্লাবে বোমা বিস্ফোরণ মামলায় ইংরেজ পুলিশের হাতে ধরা পরেন এই বীর যোদ্ধা। পরে আন্দামান দ্বীপপুঞ্জের সেলুলার জেলে বন্দী ছিলেন। সেলুলার জেলে দীর্ঘ-বন্দী জীবন কাটিয়ে তেলিয়ামুড়ার জয়নগর গ্রামে বসবাস করতে শুরু করেন। 2000 সালে আজকের দিনে বীর যোদ্ধা সুশীল কুমার দে প্রয়াত হন। জীবিত থাকতে নিজ হাতে তৈরি করে গিয়েছিলেন মাস্টারদা সূর্য সেন ট্রাস্টি বোর্ড। এখানে প্রসঙ্গত উল্লেখ্য রাজ্য সরকার সরকার এবং তেলিয়ামুড়ার বিধায়িকা কল্যাণী সাহা রায় এর আগ্রহে দশমি ঘাটে ২২ ঘড়িয়া এবং তেলিয়ামুড়ার সঙ্গে সংযোগকারী খোয়াই নদীর উপর পাকা সেতুটির নাম করা হয়েছে প্রয়াত সুশীল কুমার দের নামে। আজকে প্রয়াণ দিবসে ট্রাস্টি বোর্ডের কর্মকর্তা বীর যোদ্ধার সুপুত্র কাজল বরণ দে, তেলিয়ামুড়ার বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ নিত্যানন্দ দেব সহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গরা।

Related Post

Leave a Comment