Home ত্রিপুরা কৈলাসহর মহকুমা প্রশাসনের তরফে ক্ষতিগ্ৰস্ত ব্যাবসায়ীদের ১৬ লক্ষ আর্থিক সাহায্য

কৈলাসহর মহকুমা প্রশাসনের তরফে ক্ষতিগ্ৰস্ত ব্যাবসায়ীদের ১৬ লক্ষ আর্থিক সাহায্য

by admin
0 comment 83 views

প্রতিনিধি কৈলাসহর:-চলতি বছরের গত ১৬ ই জুন বজ্রপাতের কারণে অগ্নিসংযোগ হওয়ায় কৈলাসহর বাবুর বাজার এলাকায় থাকা ২২ জন ব্যবসায়ীর দোকানঘর পুড়ে যায়।তৎক্ষণাৎ মহকুমা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সাহায্য করার পাশাপাশি প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল পরবর্তী সময়ে তাদেরকে আর্থিক সাহায্য করা হবে।আজ কৈলাসহর মহকুমা প্রশাসনের তরফে এই ২২ জন ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীকে আর্থিক সাহায্য হিসেবে ১৫ লক্ষ ৮৬ হাজার ৪৫০ টাকার স্যাংশন মেমো তুলে দিয়েছেন ত্রিপুরা সরকারের সমাজ কল্যাণ ও সমাজ শিক্ষা এবং যুব বিষয়ক ক্রীড়া দপ্তরের মন্ত্রী টিংকু রায়।টিলাগাঁও তহশিল কাছারি কার্যালয়ে এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে এই সেংশন মেমো গুলো সুবিধাভোগীদের হাতে তুলে দেওয়া হয়।এই মঞ্চে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মন্ত্রী টিঙ্কু রায় এবং অন্যান্য অতিথিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ত্রিপুরা ওয়াকফ বোর্ডের চেয়ারম্যান মবশ্বর আলী,কৈলাসহর পুর পরিষদের চেয়ারপারসন চপলা দেবরায়,মহকুমা শাসক প্রদীপ সরকার,গৌরনগর ব্লকের সমষ্টি উন্নয়ন আধিকারিক রামেশ্বর চক্রবর্তী এবং বাবুর বাজার ব্যবসায়ী কমিটির সভাপতি আব্দুল মুমিন এবং সম্পাদক আব্দুল কালাম।মহকুমা শাসকের স্বাগত বক্তব্যের পরে মহকুমা শাসকের অফিসে কর্মরত কর্মচারী শিল্পীরা উদ্বোধনী সংগীত পরিবেশন করেন। উদ্বোধনী ভাষণে শ্রম মন্ত্রী টিঙ্কু রায় বলেন যে সমস্ত ব্যবসায়ীরা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন সকলকে সরকার সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে।এখানে কোন রাজনীতির রং দেখা হয়নি কিংবা এই সাহায্য পাওয়ার জন্য কোন আন্দোলনে নামতে হয়নি।সবকা সাথ সবকা বিকাশের ভাবনায় কাজ করে এই সরকার।পূর্বতন বাম সরকারের নীতি ছিল একটি রেশন কার্ড পেতে গেলেও মিছিলে হাঁটতে হতো।আর এই সরকারের কাছে কোন কিছু চাইতে হয় না।এমনি এমনি মানুষের কাছে সাহায্য পৌঁছে যায়।রাস্তাঘাট,বিদ্যুৎ,পানীয় জল,স্বাস্থ্য পরিষেবা,শিক্ষার মানোন্নয়ন থেকে শুরু করে সমস্ত ধরনের উন্নয়নমূলক কাজ বেগবান গতিতে চলছে। আরো উন্নয়ন এবং এই কৈলাসহর কে আরো এগিয়ে নিয়ে যেতে সবাইকে সঙ্ঘবদ্ধভাবে কাজ করার পরামর্শ দিয়েছেন মন্ত্রী শ্রী রায়।মন্ত্রীর উদ্বোধনী ভাষনের পরেই মহকুমা শাসকের তরফে ফায়ার সেফটির উপর সিভিল ডিফেন্স ভলেন্টিয়ার এবং আপাদ মিত্র ভলেন্টিয়াররা একটি ডেমোস্ট্রেশন দিয়েছেন।যা দেখে উপস্থিত সকলেই ফায়ার সেফটির উপর অনেকটাই ধারণা নিতে পেরেছেন।উক্ত অনুষ্ঠানের মাধ্যমে বাবুর বাজার ব্যবসায়ী কমিটির তরফে মন্ত্রী টিংকু রায় সহ মঞ্চে উপবিষ্ট অতিথিদেরকে সম্মানিত করা হয় এবং হ্যান্ডফুল সামাজিক সংস্থা ও গিয়াস ফুটবল একাডেমিকে মহকুমা শাসকের তরফে এপ্রিসিয়েশন লেটার তুলে দেওয়া হয়েছে। অনুষ্ঠানের শেষে অতিথিরা বৃক্ষ রোপন করেন।

Related Post

Leave a Comment